• ঢাকা
  • শুক্রবার, ২৫শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৯ই ডিসেম্বর, ২০২২ ইং
Mujib Borsho
Mujib Borsho
আলফাডাঙ্গায় যৌতুক লোভী পাষন্ড স্বামীর নির্যাতনে গৃহবধূর তিন মাসের গর্ভের সন্তান নষ্ট

আরিফুজ্জামান চাকলাদার আপেল

ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গায় উপজেলাধীন টগরবন্দ ইউনিয়নে ৯নং ওয়ার্ডে পানাইল গ্রামের সামচু সরদারের মেয়ে জামিলা বেগম(২০)কে পার্শ্ববর্তী নড়াইল জেলার লোহাগড়া উপজেলায় জয়পুর ইউনিয়নে বসুপটি গ্রামের সাবু শেখের ছেলে হাসান শেখ এর সঙ্গে উভয় পক্ষের সম্মতিতে এক বছর আগে বিবাহ সম্পন্ন হয়। লক্ষাধীক টাকা(স্বর্ণালঙ্কার, সাইকেল,ঘরের আসবাবপত্র) সহ পারিবারিক ভাবে তাদের বিবাহ সম্পন্ন হয়।স্বামী,শাশুড়ি,ননদ কর্তৃক নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ জামিলা বেগম গত কাল ১২ মার্চ শুক্রবার সকাল ১০ টার দিকে আলফাডাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে।

বিবাহের দুই মাস পর হতে শুরু হয় যৌতুক লোভী হাসান শেখ বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে খারাপ আচরণ করতে থাকে। সময় অসময়ে গৃহবধূর সঙ্গে খারাপ আচরণ সহ মারপিট করে ও বিভিন্ন সময়ে ভিন্ন ভিন্ন টাকা যৌতুক দাবি করে।
নির্যাতনের শিকার জামিলা বেগম যৌতুকের বিষয়টি তার পিতামাতা কে জানালে পিতা মাতা মেয়ের সূখের কথা চিন্তা করে জামাইকে দোকান দেওয়ার সময় এক লক্ষ টাকা দিতে সম্মতি দেয়।
এটাতেই শেষ হয়নি য‍ৌতুক লোভী স্বামী আবারও গত ১২ মার্চ তারিখে এক লক্ষ টাকা দাবি করে।জামিলা বলেন, বাহিরে পরকিয়া থাকায় শশুরে পছন্দে আমার সাথে বিয়ে দেওয়া পর থেকে নির্যাতন শুরু হয়।বিয়ের দুই মাস পর থেকে যৌতুকের জন্য মারধর করে।যৌতুক দিতে না পারলে আমার সঙ্গে সংসার করবে না বলে জানিয়ে দেয় তার স্বামী।
কিন্তু জামিলার পিতামাতা এই অযৌক্তিক দাবি,তারা গরীব মানুষ কোথায় থেকে দেবে এটি জানিয়ে দেয়।এ সংবাদ পেয়ে পাষন্ড স্বামী হাসান শেখ ক্ষিপ্ত হয়ে আবারও তাকে মারপিট করে এবং বলে যে তোর পিতামাতা টাকা দিতে না পারলে তোর স্বর্ণালঙ্কার ও অন‍্যান‍্য মালামাল যা যা আছে এ গুলি রেখে তোর বাপের বাড়ি চলে যা বলে স্ত্রীর উপর নির্যাতন চালায়।
বিষয়টি জামিলার মাতা হোসনেয়ারা বেগম সংবাদ পেয়ে মেয়ে কে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।মামলার প্রস্তুতি চলছে।
এদিকে পাষন্ড স্বামী হাসান শেখ মুঠফোনে বলে, এ অভিযোগ মিথ্যা তবে শরীর খারাপের জন্য কিছু দিন আগে পানি পড়া খাইয়ে ছিলাম। হাসপাতালের
কর্তব্যরত ডাঃ আসিকুর রহমান প্রতিবেদক কে বলেন, জামিলার শরীরে আঘাতের দাগ রয়েছে, বিলিডিং ছিল ও বাচ্চা নষ্ট হয়েছে। হাসপাতাল থেকে ডিএনসি/ ওয়াস করা হয়েছে এখন বিপদ মুক্ত।

ফেসবুকে লাইক দিন

তারিখ অনুযায়ী খবর

ডিসেম্বর ২০২২
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« নভেম্বর  
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১ 
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।