• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২২ ইং
Mujib Borsho
Mujib Borsho
ছোলার ডাল পেঁয়াজ ছাড়া রান্না

ছবি প্রতিকী

ছোলার ডাল শুধু সুস্বাদুই নয়, এটি উদ্ভিজ্জ প্রোটিনের দারুণ উৎস। এদিকে আসছে পূজা। পূজার সময়ে রঙ-বেরঙের নিরামিষ রান্না হয়। তাদের মধ্যে অন্যতম এই ছোলার ডাল। আজ রইলো পেঁয়াজ ছাড়া নিরামিষ ছোলার ডালের রেসিপি। সারাবছরই খেতে পারেন সুস্বাদু এই খাবার। ভালো লাগবে ভাত, লুচি, রুটি বা পরোটার সঙ্গে। আসুন দেখে নেই রেসিপি।

উপকরণ

ছোলার ডাল- ২০০ গ্রাম
তেজপাতা- ১ টি
দারচিনি- ১ টি
লবঙ্গ- ২/১ টি
এলাচ- ২/১ টি
গোলমরিচ- ৩/৪ টি (গুড়া করে বা ভেঙে নেওয়া)
আস্ত জিরা- ১ চা চামচ
হলুদ গুঁড়া- ১ চা চামচ
জিরা গুঁড়া- ১ চা চামচ
মরিচ গুঁড়া- ১ চা চামচ
আদা বাটা- ১ চা চামচ
আস্ত শুকনো মরিচ- ২ টি
আস্ত কাঁচা মরিচ- ৩ টি
লবণ- আন্দাজমত
চিনি- ২/১ চা চামচ
তেল- ১ টেবিল চামচ
ঘি- ১ চা চামচ
কিসমিস (ঐচ্ছিক)- ১০/১২ টি
পদ্ধতি
ছোলার ডাল ১/২ ঘন্টা অথবা রাতভর ভিজিয়ে রাখতে হবে। এরপর ভেজানো ডাল ধুয়ে প্রেসার কুকার বা অন্য হাড়িতে পানি, হলুদ ও লবণ দিয়ে সেদ্ধ করতে হবে। প্রেশার কুকারে ২ সিটি দিলেই হবে। খেয়াল রাখবেন ডাল আস্ত থাকবে, গলে যেন না যায়।

এবার কড়াইতে তেল গরম করে তাতে আস্ত গরম মশলা, তেজপাতা, শুকনো মরিচ ও জিরা ফোঁড়ন দিন। এরপর আদাবাটা দিয়ে অল্প ভেজে নিতে হবে। কেউ চাইলে হিং দিতে পারেন এসময়।

এবার ওই মশলার মধ্যে সেদ্ধ ডাল ঢেলে দিতে হবে। সঙ্গে দিতে হবে জিরা ও শুকনো মরিচ গুঁড়া। ফুটে উঠলে লবণ ও চিনি দিন। ডাল ভালোমত সেদ্ধ হয়ে গেলে আস্ত কাঁচা মরিচগুলো দিন। এই পর্যায়ে ডাল ক্রমাগত নাড়তে হবে যেন তলায় লেগে না যায়। ঘন হয়ে এলে ঘি আর কিসমিস(ঐচ্ছিক) দিয়ে নামিয়ে নিন। মজার এই ডাল গরম গরম পরিবেশন করুন পোলাও, লুচি বা পরোটার সঙ্গে।

ফেসবুকে লাইক দিন

তারিখ অনুযায়ী খবর

নভেম্বর ২০২২
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« অক্টোবর  
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০ 
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।