• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২২ ইং
Mujib Borsho
Mujib Borsho
ভাঙ্গায় ডিবি পরিচয়ে ৬ পরিবহন থেকে ৫ লাখ টাকার পলিথিন জব্দ

মোঃ রমজান শিকদার,
ভাঙ্গা (ফরিদপুর) প্রতিনিধি-২৩/১১/২০২২
ফরিদপুরের ভাঙ্গায় ডিবি পরিচয় দিয়ে ৬টি পরিবহন গাড়ী থেকে ১৫ বস্তুা অবৈধ পলিথিন জব্দ করে। পরবর্তীতে জানা যায় ভুয়া ডিবির পরিচয় দিয়ে ভাঙ্গার কিছু প্রতারক চক্রের সব পলিথিন আত্মসাৎ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে । পলিথিনের অনুমানিক বাজার মুল্য পাচ লক্ষ বলে জানিয়েছেন ক্ষতিগ্রস্ত পলিথিন ব্যবসায়ীরা। পলিথিন বহনকারী সুগন্ধা পরিবহনের ২টি গাড়ী, দিদার পরিবহন, ব্যাপারী পরিবহন, অন্তরাপরিবহন ও গ্রামীণ পরিবহনের মোট ৬টি পরিবহন থেকে পলিথিনের ১৫টি বস্তা নামিয়ে রাখে প্রতারক চক্রটি।
ক্ষতিগ্রস্ত পলিথিনের মালিক মাদারীপুরের কালকিনি এলাকার বাচ্চু ও রিপন কবিরাজ জানান, ঢাকা থেকে গত বৃহস্পতিবার, শনিবার ও রবিবার ৩দিনে ১৫ বস্তুা পলিথিন কিনে বরিশালের গাড়ীতে বুকিং দেই। পথিমধ্যে ভাঙ্গা বাজার বাসস্ট্যান্ড ৩ জন ডিবি পুলিশ পরিচয় গাড়ি দাড় করায়। পরে তারা গাড়ী তল্লাশি করে ১৫ বস্তা পলিথিন জব্দ করে নিয়ে যায়। সেসময় ডিবির সাথে জনৈক সাংবাদিক একটি ভিজিটিং কার্ড দিয়ে পরবর্তীতে যোগাযোগের জন্য বলে। পরে বিভিন্ন লোকজনদের কাছে জানতে পারি তারা সবাই ভূয়া ডিবি। সোমবার আমরা ঐ সাংবাদিকের ভিজিটিং কার্ডের মোবাইল নাম্বারে ফোন করলে সে আমাদের ভাঙ্গা আসতে বলে। তার কথামত ভাঙ্গা এসে তার সাংবাদিকের অফিসে বসি। তখন সে আমাদেরকে পলিথিন ছাড়ানোর জন্য মোটা অংকের টাকা দাবি করে অন্যথায় পুলিশে ধরিয়ে দেওয়ার হুমকি দেয়। আমরা এক পর্যায়ে তার চাহিদার অর্ধেক টাকায় পলিথিন ফেরত পাওয়ার চুক্তি করি। সে আমাদেরকে ২ দিন একটি আবাসিক হোটেলে রেখে আজ বুধবার সন্ধ্যায় জানায় ডিবির হাতে আটককৃত পলিথিন ভাঙ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পুড়িয়ে ফেলেছে। সেখানেও খবর নিয়ে জানতে পারি উপজেলা প্রশাসন কোন পলিথিন জব্দ বা পুড়ানোর মত কোন ঘটনা ঘটেনি। আমরা উপান্তর না পেয়ে তাকে পুনরায় পলিথিন ফেরৎ চাই। তখন সব কিছু অস্বীকার করে। তখন তাকে আমরা পলিথিন জব্দর সময় ছবি ও মোবাইলে ফোন করার কথা বললে সে আমাদেরকে হুমকি দেয়।
বিষয়টি নিয়ে সুগন্ধা পরিবহনের সুপার ভাইজার জানান, ভাঙ্গা ও কৈডুবী ফাঁকা জায়গায় গাড়ীর গতিরোধ করে তারা ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে পলিথিন জব্দ করে নিয়ে যায়। পরে তাদের সাথে যোগাযোগ করলে আমাদের নিকট টাকা দাবি করেন এবং বলে এসব মালামাল ফরিদপুর ডিবি ও ভাঙ্গা উপজেলা ইউএনও অফিসে নিয়ে গেছে। আমরা ফরিদপুর ডিবি অফিসে গেলে, ফরিদপুর ডিবি অফিস জানায়, তারা কোন পলিথিন জব্দ করেন নাই এবং আমাদের কোন ডিবি পুলিশ ভাঙ্গায় যায় নাই। সেখান থেকে চলে এসে বিভিন্ন মাধ্যমে জানতে পারি তারা সবাই ভূয়া ডিবি।
এ ব্যাপারে ভাঙ্গা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়েরের ব্যবস্থা হচ্ছে।

ফেসবুকে লাইক দিন

তারিখ অনুযায়ী খবর

নভেম্বর ২০২২
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« অক্টোবর  
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০ 
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।