• ঢাকা
  • শনিবার, ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২২ ইং
Mujib Borsho
Mujib Borsho
সদরপুরে মাথা গোঁজার ঠাই মিলছে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়নের স্বপ্ন শতনীড়ে

ছবিঃ সদরপুরে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য গৃহ নির্মান কাজ পরিদর্শন করেন প্রকল্প পরিচালক শামীম আহম্মেদ।

সাব্বির হাসান, সদরপুর( ফরিদপুর) প্রতিনিধি :

“আশ্রয়নের অধিকার-শেখ হাসিনার উপহার” মুজিববর্ষে অঙ্গীকার হিসাবে সদরপুর উপজেলায় গৃহহীন ও ভূমিহীন মানুষের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আবাসন উপহার হিসেবে প্রদত্ত খাস জমিতে গৃহ নির্মানের কাজ করছে সদরপুর উপজেলা প্রশাসন।

এরই ধারাবাহিকতায় কাজের অগ্রগতিসহ বিভিন্ন দিক নিয়ে পরিদর্শন করতে আসেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় প্রকল্প-৬ পরিচালক শামীম আহম্মেদ। আজ মঙ্গলবার সকাল ১১টায় সদরপুর উপজেলার ভাষানচর ইউনিয়নের হাওলাদারডাঙ্গী গ্রামে নিমার্নাধীন ভূমিহীন ও গৃহহীনদের প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণের স্বপ্ন শতনীড় আশ্রয়ন প্রকল্পে পুর্নবাসন ১০০টি ঘরের পরিদর্শন করেন।

পরিদর্শন শেষে পুর্নবাসন অঞ্চলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার পূরবী গোলদারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা করা হয়। সভায় প্রধান প্রকল্প পরিচালক শামীম আহম্মেদ বলেন, কাজের অগ্রগতি ও নির্মান সামগ্রীর গুনগতমান অত্যান্ত ভালো হচ্ছে। তিনি আরও বলেন নতুন বছরের শুরুর দিক থেকেই উপজেলার ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার গুলো তাদের স্বপ্নের ঘরে উঠতে পারবে।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এ বিশেষ উদ্যোগে তৃণমৃল এলাকার জনগোষ্ঠী মাথাগোজার ঠাঁই মিলছে বলে সকল কে ধন্যবাদ জানান।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, সদরপুর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আবু এহসান মিয়া, ভাষানচর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ ছমির বেপারী।

সদরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পূরবী গোলদার বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় ১৭৮টি পরিবারের ঘর বরাদ্দ পাওয়ার পর থেকে উপজেলা প্রশাসন দিনরাত পুরোদমে সরকারি খাস জমিতে গৃৃহ নির্মানের কাজ করে যাচ্ছে। সদরপুর উপজেলার ১৭৮টি গৃহনির্মান প্রকল্পের কাজ চলছে। জেলা প্রশাসকের সার্বিক দিক নির্দেশনায় আমি নির্মান কাজ গুলো তদারকি করছি। তিনি আরও বলেন, গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করলে উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন থেকে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের নিকট থেকে আবেদন জমা পড়ে। তৎপ্রেক্ষিতে আবেদনপত্র যাচাই বাচাই করে উপকারভোগী নির্বাচন করে উপকারভোগীদের গৃহে উত্তোলনের ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, প্রথম পর্যায়ে ‘ক’ শ্রেণিভুক্ত ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে ২শতাংশ খাস জমি দিয়ে ঘর তৈরি করে দেওয়া হচ্ছে। দুইকক্ষ বিশিষ্ট বারান্দাসহ প্রতিটি আধা পাকা ঘরের নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে ১লাখ ৭হাজার টাকা। সবগুলো বাড়ি সরকার নির্ধারিত একই নকশায় হচ্ছে। রান্নাঘর,সংযুক্ত টয়লেটসহ অন্যান্য সুবিধা থাকছে এসব বাড়িতে। এছাড়াও বিদ্যুৎ সংযোগের ও কাজ চলছে।

ফেসবুকে লাইক দিন

তারিখ অনুযায়ী খবর

ডিসেম্বর ২০২২
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« নভেম্বর  
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১ 
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।