• ঢাকা
  • শুক্রবার, ১১ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ ইং
একজন কর্মঠ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বিদায়

একজন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তার নিজ কর্মগুন এবং দক্ষতায় নিজ কর্মের মধ্যদিয়ে বেঁচে থাকেন ঐ উপজেলার সর্বোস্তরের মানুষের মাঝে। প্রান্তিক মানুষ থেকে শুরু করে ব্যবসায়ীক সংগঠন সামাজিক সংগঠন তরুণ উদ্যোক্তা রাজনৈতিক প্রশাসনিক সাংবাদিক সব দিক দিয়ে তার স্মৃতি রয়ে যায় নিজ কর্মস্থলে। রেখে যান তার নতুন নতুন উদ্ভাবনী নতুন কিছু কর্মগুন। নওগাঁ সদর উপজেলার সদ্য বিদায়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আবদুল্লাহ আল মামুন তার কর্মের মধ্য দিয়ে সদর উপজেলার সর্বোস্তরের মানুষের মনে যায়গা করে নিয়েছেন ।

তার বিদায় বেলায় নিজ কর্মস্থলে রেখে যাওয়া কর্মপরিকল্পনা গুলো তুলে ধনের অশ্রশজ্জল কন্ঠে বিদায়ী ইউএনও । কাজের নতুনত্ব এবং সামাজিক ও মানবিক আচরণের জন্য সহকর্মীদের মনে যায়গা করে থাকবেন চিরকাল তার সহকর্মীরা। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় তার কর্মপরিকল্পনার কিছু চিত্র তিনি তুলে ধনের

প্রথমতঃ সামাজিক এবং সাংস্কৃতিক অঙ্গনে তাঁর বিচরণ ছিল চোখে পড়ার মতো। বিভিন্ন স্কুল কলেজে গিয়ে ক্লাস নেয়া, ছাত্র-ছাত্রীদের উদ্বুদ্ধ করা, ছাত্র-ছাত্রীদের ঝরে পড়া রোধে বিশেষ প্রজেক্ট গ্রহণ। দুই হাজারের বেশি ছেলে মেয়েকে উন্নত মানের টিফিন বাটি বিতরণ, ৫০ জন দরিদ্র ছেলে মেয়েকে সাইকেল বিতরণ।

দ্বিতীয়তঃ ভিক্ষুক পুনর্বাসন ও বেকার যুবক দের কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে ব্যতিক্রমী শপথ গ্রহণ করা হয়েছে। ভিক্ষুকদের বিভিন্নভাবে পুনর্বাসন করার পাশাপাশি ৪৯ জন ভিক্ষুকের মালিকানায় গড়ে তোলা হয়েছে আধুনিক মানসম্মত মাংসের দোকান। গোষ্ঠীগতভাবে ভিক্ষুকদের টেকসই পূনর্বাসনের লক্ষ্যে এটি হতে পারে কাঙ্খিত মডেল।

তৃতীয়তঃ নওগাঁ সদর উপজেলার ১৪০ টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় অনেকে বিরুদ্ধাচারণ করার পরেও ডিজিটালাইজড করার ঝুঁকি এককভাবে গ্রহণ করেছেন।।

চতুর্থত: স্থানীয় তরুণ উদ্যোক্তাদের উদ্বুদ্ধকরণের মাধ্যমে পিপিপি মডেল এর আওতায় স্থানীয় রিসোর্স ব্যবহার করে নির্মাণ করা হয়েছে আধুনিক সুইমিংপুল ও জিমনেসিয়াম (লাইব্রেরী ও স্মার্ট ক্যাফে সহ)। স্থায়ী স্থানীয় জনগণের চাহিদার ভিত্তিতে তাদের নিজেদের কাজে লাগিয়ে সরকারের উপর চাপ কমাবার লক্ষ্যে এসব প্রজেক্ট তার ঐকান্তিক চেষ্টায় নেয়া হয় এবং সফলভাবে সম্পন্ন করা হয়।

পঞ্চমত: ক্রীড়াঙ্গনে তিনি বিরাট ভূমিকা রেখেছেন। ঐতিহ্যবাহী নওগাঁ টেনিস কে দেশব্যাপী আরও পরিচিত করণের লক্ষ্যে জেলা প্রশাসক গোল্ডকাপ টেনিস টুর্নামেন্ট এবং জেলা প্রশাসক জাতীয় জুনিয়র টেনিস টুর্নামেন্ট অত্যন্ত সফলভাবে আয়োজন সম্পন্ন করেছেন।

সর্বশেষ, করোনা কালীন সময়ে সকলকে সাথে নিয়ে সম্মুখ যোদ্ধা হিসেবে কাজ করেছেন। সরকারি এনজিও সামাজিক সংগঠন ও ব্যক্তিগত ত্রাণ সমন্বয় করে ২০ হাজার মানুষের কাছে পৌঁছে দিয়েছেন। কেভিড২০ ক্ষতিগ্রস্থ মানুষকে সরাসরি দেখভাল করা কোয়ারেন্টাইন করা আইসোলেশন করা তাদের সাথে কথা বলা এবং প্রয়োজনে লকডাউন করার মত সাহসী কাজগুলো সকলকে সাথে নিয়ে অত্যন্ত দক্ষ ভাবে করেছেন।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলেছেন একজন অফিসার চাইলে একটি এলাকা পরিবর্তন করতে পারেন। একটি এলাকা বা উপজেলায় একজন ইউএনও সামাজিক ও মানবিক মূল্যবোধ জোরদারে অনেক কাজ করে থাকেন।বিদায়ী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আব্দুল্লাহ আল মামুন নওগাঁ সদর উপজেলায় ১ বছর ৮মাস ১৭ দিন কর্মরত ছিলেন। এই সময়ের মধ্যে তিনি কিছু মৌলিক এবং ভিন্নধর্মী উদ্যোগ গ্রহণ করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। প্রশাসনকে সামাজিকীকরণ এবং সাধারণ মানুষের কাছে নিজেকে উজাড় করে দিতে তিনি সফল হয়েছেন।

ফেসবুকে লাইক দিন

তারিখ অনুযায়ী খবর

ফেব্রুয়ারি ২০২৪
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« জানুয়ারি    
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯  
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।