• ঢাকা
  • সোমবার, ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ৪ঠা মার্চ, ২০২৪ ইং
করোনার পর এবার ইতালিকে কাঁপিয়ে দিলো ভুমিকম্প

করোনার পর এবার ইতালিকে কাঁপিয়ে দিলো ভুমিকম্প

মহামারি করোনাভাইরাসে প্রথমদিকে সবচেয়ে বেশি নাকাল হয়েছিল ইউরোপের ইতালি। শান্তির দেশটিকে মৃত্যুপুরী বানিয়ে দিয়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। আস্তে আস্তে করোনা সংকট কাটিয়ে উঠতে শুরু করেছে দেশটি।

উল্লেখযোগ্য হারে কমতে শুরু করেছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। এমন সময় ভূমিকম্প কাঁপিয়ে দিলে করোনায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া নর্দার্ন ইতালিকে।

৪.৩ মাত্রায় ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে ইমিলিয়া, রোমাগনাতে। যা করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া কোলি এলাকা থেকে মাত্র ১ কিলোমটার দূরে। যেটার কম্পন টের পাওয়া গেছে মিলান ও লোম্বার্ডি শহরেও।

ইউরোপিয়ান-মেডিটেরিয়ান সিসমোলজিক্যাল সেন্টারের দেওয়া তথ্যমতে ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল থেকে ৪৬ কিলোমিটার দূরের জেনোয়া শহরেও টের পাওয়া গেছে কম্পন। তবে কোনো ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি।

ইতালির স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা ৪২ মিনিটে ভূমিকম্পটি আঘাত হানে। লোম্বার্ডির পাভিয়া শহরের একজন বলেছেন, ‘আমি দ্বিতীয় তলায়ও চার সেকেন্ড ধরে কম্পন টের পেয়েছি। আমার বিছানা কাঁপছিল।’ এই শহরের আরেকজন জানিয়েছেন তার ঝাড়বাতি কাঁপছিল। জেনোয়া শহরের একজন বলেছেন, ‘আমি একটি দালানের ছয় তলায় থাকি। আমি প্রায় পাঁচ সেকেন্ড ধরে কম্পন অনুভব করেছি।’

বর্তমানে অধিকাংশ ইতালিয়ান লকডাউনে আছেন। তারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভূম্পিকম্প হ্যাশট্যাগ দিয়ে ২০২০ সালকে সবচেয়ে বাজে বছর বলে উল্লেখ করেছেন কম্পনের পরে। কেউ কেউ ক্ষোভের সুরে জানতে চান পৃথিবী ধ্বংস হচ্ছে কবে?

মহামারি করোনাভাইরাসে ইতালিতে এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ ৬৮ হাজার ৯৪১ জন। মৃত্যুবরণ করেছে ২২ হাজার ১৭০ জন। তার মধ্যে ১১ হাজার ৪০০ জন লোম্বার্ডি অঞ্চলের। আর ২৮০০ জন ইমিলিয়া-রোমাগনা অঞ্চলের। করোনার সঙ্গে যুদ্ধ করে সেরে উঠেছে ৪০ হাজার ১৬৪ জন।

তথ্যসূত্র : মেট্রো

ফেসবুকে লাইক দিন

তারিখ অনুযায়ী খবর

মার্চ ২০২৪
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« ফেব্রুয়ারি    
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।